প্রবাসীর বাড়ীতে সন্ত্রাসী হামলা, ভাংচুর, লুট ও নারীসহ আহত ৫

  

পিএনএস, লক্ষ্মীপুর: লক্ষ্মীপুরের চন্দ্রগঞ্জ থানার পূর্ব মান্দারী গ্রামে প্রবাসীর বাড়ীতে সন্ত্রাসীরা অতর্কিত হামলা চালিয়েছে। সন্ত্রাসীদের হামলায় নারী-পুরুষ ও শিশু সহ ৫ জন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় প্রবাসী শাহজাহান বাদী হয়ে (আজ) মঙ্গলবার সকালে ৫ জনকে আসামী করে চন্দ্রগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

সোমবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর আহতদের অনেককেই লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ দিকে ঘটনায় হামলাকারীদের ব্যবহৃতদের সিএনজি অটোরিক্সা সহ রিপন নামের এক সন্ত্রাসীকে স্থানীয় জনতা হাতে নাতে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, জায়গা জমির বিরোধ নিয়ে সোমবার বিকেলে পুর্ব মান্দারী গ্রামের প্রবাসী শাহজানের সঙ্গে তার ভাই আলমগীরের তর্কাতর্কি এবং হাতাহাতি হয়। এ ঘটনার জের ধরে রাত প্রায় সাড়ে ১০ টার দিকে প্রতিপক্ষ আলমগীরের ছেলে রাসেলের নেতৃত্বে ছাত্রলীগের স্থানীয় এবং বহিরাগত ১০/১৫ জন সন্ত্রাসী সিএনজি অটো রিক্সা ও মোটর সাইকেল যোগে এসে প্রবাসী শাহজানের বাড়ী ঘরে এলাপাতাড়ি হামলা, ভাংচুর, লুট চালায়।

এতে সন্ত্রাসীদের হামলা ও মারধরে প্রবাসী শাহজান, তার স্ত্রী, ও মেয়ে খাদিজা, নার্গিস আক্তার, নিকটাত্মীয় মালেক, প্রতিবেশী দ্বীন মোহাম্মদ সহ ৫ জন আহত হয়। এ সময় স্থানীয় লোকজনের প্রতিরোধে মুখে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যাওয়ার সময় জনতা হাতেনাতে সন্ত্রাসী রিপন ও তাদের ব্যবহৃত সিএনজি অটো রিক্সা আটক করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এলে রাতেই গাড়ি সহ তাকে পুলিশে সোপর্দ করে জনতা।

আটককৃত রিপন চন্দ্রগঞ্জের রামকৃষ্ণপুর অমলক্ষী বাড়ীর আঃ মান্নানের ছেলে বলে জানা গেছে।

চন্দ্রগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি আজিজুল ইসলাম মিয়া বলেন, এ ঘটনায় প্রবাসী শাহজান বাদী হয়ে আটককৃত রিপনসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে চন্দ্রগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech