রায়পুরে নারী শ্রমিককে মারধরের পর ধর্ষণ

  


পিএনএস: লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে কাজ শেষে বাড়ি ফেরার পথে এক নারী শ্রমিককে (১৮) মারধরের পর ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় তার কাছে থাকা টাকা ও মোবাইল সেট ছিনিয়ে নেয়ারও অভিযোগ ওঠেছে।

শুক্রবার বিকেলে ক্ষতিগ্রস্ত ওই নারী বাদী হয়ে রায়পুর থানায় একজনের নাম উল্লেখ ও অজ্ঞাত আরো তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, উপজেলার বামনীর পূর্ব কাঞ্চনপুর গ্রামের ওই নারী শ্রমিক রায়পুরের বেঙ্গল সু-কারখানায় শ্রমিকের কাজ করেন। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর কাজ শেষে তিনি বাড়ি ফিরছিলেন। তিনি স্থানীয় ভূঁইয়া বাড়ির সামনে পৌঁছালে বখাটে শরিফসহ চার যুবক তার পথরোধ করে। একপর্যায়ে তাকে মারধর করে জোরপূর্বক পাশের বাগানে নিয়ে ধর্ষণ করা হয়। এসময় তার ব্যাগে থাকা সাড়ে চার হাজার টাকা ও মোবাইল সেট নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা।

পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। বখাটে শরিফ পূর্ব কাঞ্চনপুর গ্রামের মিজান পাটওয়ারীর ছেলে।

সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. মো. আনোয়ার হোসেন বলেন, ভিকটিমের চিকিৎসা চলছে। তার শরীরের বিভিন্ন অংশে মারধরের চিহ্ন রয়েছে।

রায়পুর থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ সোলায়মান বলেন, এক যুবক ধর্ষণ করেছে, অন্য সহযোগীরা মারধর ও টাকা ছিনিয়ে নিয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেফতার করতে কয়েকটি স্থানে অভিযান চালানো হয়েছে।

পিএনএস/বাকিবিল্লাহ্

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech