লক্ষ্মীপুরে ২ সন্তানের জননীকে কুপিয়ে হত্যা

  

পিএনএস, লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি : লক্ষ্মীপুরে প্রাকৃতিক ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বের হলে নাসরিন আক্তার (৩৪) নামে এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দূর্বৃত্তরা। বুধবার (১৫ জানুয়ারি) ভোরে সদর উপজেলার চন্দ্রগঞ্জের লতিফপুর গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত নাসরিন একই গ্রামের প্রবাসী ফারুক হোসেনের স্ত্রী ও দুই সন্তানের জননী। এদিকে নাসরিনের মৃত্যুতে সদর হাসপাতাল এলাকায় স্বজনদের কান্নার রোল উঠে।

নাসরিনের স্বামী ফারুক ও ছেলে নাইমুল ইসলাম জানায়, মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) রাতে তারা তিনজন একই বিছানায় ঘুমিয়েছে। ফজরের আযানের পর নাসরিন ঘুম থেকে উঠে প্রাকৃতিক ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বের হয়। এসময় কে বা কারা তাকে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। চিৎকার শুনে তারা ঘর থেকে বের হলে এক ব্যক্তিকে পালিয়ে যেতে দেখতে পায়। তবে চেহারা দেখা যায়নি। পরে নাসরিনকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) আনোয়ার হোসেন বলেন, নিহতের গলার নিচে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। প্রচুর রক্তক্ষরণে তার মৃত্যু হয়েছে। তবে কি দিয়ে আঘাত করা হয়েছে তা বলা যাচ্ছে না। ময়নাতদন্তের পর বিস্তারিত জানা যাবে।

চন্দ্রগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জসিম উদ্দিন জানান, নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। পূর্ব শত্রুতার জেরে কিংবা অন্য কোনো কারণে তাঁকে হত্যা করা হয়েছে কিনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানান ওসি।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন