‘মুসলিমকে বিয়ে করেছেন, করিনার তো লজ্জা হওয়া উচিৎ’

  

পিএনএস ডেস্ক: হিন্দু হয়ে একজন মুসলিমকে বিয়ে! এবার তোপের মুখে করিনা কপূর খান। নবাব পতৌদির স্ত্রী’কে এইভাবে ট্রোলের শিকার হতে হয়েছে অনলাইনে।

ধর্ষণের ঘটনার প্রতিবাদ করার পেরই রোষের মুখে পড়েন করিনা। আর তাঁকে সমর্থন করে ওই মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ করেছেন সহকর্মী সারা ভাস্বর।

সম্প্রতি উন্নাও এবং কাঠুয়ার ধর্ষণের ভয়ঙ্কর ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পর অনেক সেলেব্রিটিই ধর্ষণের প্রতিবাদে এক বিশেষ ক্যাম্পেন করছেন। তাঁরা বুকের সামনে একটি সাদা কাগজে লেখা নিয়ে দাঁড়ানো ছবি পোস্ট করছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেখানে লেখা আছে ‘I am Hindustan, I am ashamed. করিনা কপূরও সেই প্রতিবাদে সামিল হন।

তবে তাঁর কোনও সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্দলে না থাকায় তাঁর ছবিটি পোস্ট করেন সারা ভাস্বর।

সেই ছবিতেই আসে বিতর্কিত কমেন্ট। এক ব্যক্তি মন্তব্য করেছে, ‘হিন্দু হয়ে একজনম মুসলিমকে বিয়ে করেছেন। ওনার লজ্জা হওয়া উচিৎ। আবার এক সন্তানও হয়েছে। যার নাম রাখা হয়েছে এক নৃশংস মুসলমের নামে, তাইমুর।

ক্ষুব্ধ স্বারা রিপ্লাইতে লেখেন, ‘আপনার তো বেঁচে থাকার জন্যই লজ্জা হওয়া উচিৎ।

ভগবান আপনাকে মসওষ্ক দিয়েছে ঘৃণা করার জন্য আর মুখ দিয়েছে কদর্য কথা বলার জন্য। আপনি ভারত আর হিন্দুদের লজ্জা।’

কিছুদিনের মধ্যেই করিনা ও স্বারাকে ‘বীরে দি ওয়েডিং’ নামের একটি ছবিতে একসঙ্গে কাজ করতে দেখা যাবে। শশাঙ্ক ঘোষ পরিচালিত ওই ছবি মুক্তি পাবে আগামী ১ জুন।

পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech