সৌদি সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর গুলিতে সন্দেহভাজন সন্ত্রাসী নিহত

  


পিএনএস ডেস্ক: সৌদি আরবের পূর্বাঞ্চলীয় জেলা কাতিফে সন্দেহভাজন এক সন্ত্রাসীকে গুলি করে হত্যা করেছে দেশটির সীমান্ত রক্ষী বাহিনী।

শিয়া অধ্যুষিত ওই এলাকায় সাম্প্রতিক সময়ে নিরাপত্তা বাহিনীর ওপর ধারাবাহিকভাবে হামলার ঘটনা ঘটছে।

নিহত ওই সন্ত্রাসীর নাম জাফর আল-মোবিরিক। দেশটির পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশে সাইহাট শহরে গত শুক্রবার এক অভিযানে তাকে হত্যা করা হয় বলে আল জাজিরার খবরে বলা হয়। নিহত ব্যক্তি ‘কাতিফ সেলের’ একজন সদস্য ছিলেন।

খবরে আরো বলা হয়, সন্দেহভাজন ওই ব্যক্তি সৌদি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওয়ান্টেড নয় জন ব্যক্তির একজন ছিলেন এবং তার লক্ষ্যবস্তু ছিল জনসাধারণ ও নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা। এছাড়াও, তিনি নিরাপত্তা ও অর্থনৈতিক স্থাপনা ভাঙচুরের সঙ্গে জড়িত ছিলেন।

২০১১ সাল থেকে ওই জেলায় শিয়া বিক্ষোভের কারণে চরম অস্থিরতা বিরাজ করছে।

দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিকে উদ্ধৃতি করে আরব নিউজের খবরে বলা হয়, বৃহস্পতিবার কাতিফের আল-রামিস উপকূলে অভিযানের সময় সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর গুলিতে একজন নিহত এবং অন্য একজন আহত হয়েছেন।

ওই এলাকাটিতে সংখ্যালঘু শিয়াদের একটি উল্লেখযোগ্য সংখ্যক মানুষের বাস। তারা ঐতিহ্যগতভাবে প্রান্তিকীকরণের অভিযোগ করছে। সম্প্রতি সমেয় সেখানে পুলিশের ওপর একাধিক হামলার ঘটনা ঘটেছে।

কাতিফে পুলিশের ওপর আক্রমণ ও সহিংসতায় জড়িত থাকা এবং সন্ত্রাসী অপরাধের দায়ে সৌদি কর্তৃপক্ষ মঙ্গলবার চারজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে।

কর্তৃপক্ষ জানায়, গত মাসে কাতিফের তিন পুলিশ কর্মকর্তাকে হত্যা করা হয়েছে এবং বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে। এছাড়াও, গাড়ি বিস্ফোরণে দুই সন্দেহভাজন মারা যায়। সূত্র: এএফপি

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech