আগাম টিকিট বিক্রির দ্বিতীয় দিনে কমলাপুরে ভিড়

  

পিএনএস ডেস্ক: অগ্রিম টিকিটের জন্য কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে প্রথম দিনের তুলনায় শনিবার ঘরমুখী মানুষের ভিড় আরো বেড়েছে। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে টিকিটপ্রত্যাশী মানুষের ভিড় আরো বাড়ছে।

টিকিটপ্রত্যাশী অনেকেই গতরাত থেকে স্টেশনের টিকিট কাউন্টারের সামনে লাইনে দাঁড়িয়েছিলেন। শনিবার সকাল ৮টা থেকে কমলাপুরের ২৩টি কাউন্টার থেকে অগ্রিম টিকিট বিক্রি হচ্ছে। আজ বিক্রি হচ্ছে আগামী ২৮ আগস্টের টিকিট।

সরেজমিনে দেখা যায়, অগ্রিম টিকিট সংগ্রহে অনেকেই অপেক্ষার প্রহর গুণছেন। এরমধ্যে যারা আগে লাইনে দাঁড়িয়েছিলেন তাদের অনেকেই ইতোমধ্যে টিকিট পেয়েছেন। টিকিট পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাদের আনন্দ প্রকাশ করতে দেখা গেছে।

রংপুর এক্সপ্রেস ট্রেনের টিকিটের জন্য অপেক্ষা করছিলেন বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী আসিফ আহমেদ। তিনি বলেন, ২৮ তারিখের টিকিটের জন্য সকালে লাইনে দাঁড়িয়েছি। আজ প্রচণ্ড ভিড়, এত ভিড়ের মাঝে টিকিট পাব কি না তা নিয়ে সংশয়। অন্যান্য সময় বাসে যাতায়াত করি কিন্তু এবার সড়কপথে অতিরিক্ত খানাখন্দের কারণে দীর্ঘ যানজট এবং দুর্ঘটনার শঙ্কা থাকায় ট্রেনে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

কমালাপুর স্টেশন ম্যানেজার সীতাংশু চক্রবর্তী বলেন, টিকিটপ্রত্যাশীরা অত্যন্ত সুশৃঙ্খলভাবে লাইনে দাঁড়িয়ে টিকিট কিনতে পারছেন। কোনো যাত্রী এখন পর্যন্ত কোনো ধরনের অভিযোগ জানাননি। কমলাপুর থেকে প্রতিদিন ৩১টি ট্রেনের ২২ হাজার ৪শ ৯৬টি টিকিট বিক্রি করা হবে। এর মধ্যে ২৫ শতাংশ অনলাইন, ৫ শতাংশ ভিআইপি, ৫ শতাংশ রেলওয়ে কর্মকর্মতা-কর্মচারীদের জন্য বরাদ্দ। বাকি ৬৫ শতাংশ টিকিট কাউন্টার থেকে বিক্রি হবে।

কোরবানির ঈদ সামনে রেখে ঈদের আগাম টিকিট বিক্রি শুরু হয় শুক্রবার। প্রথম দিনে দেওয়া হয় ২৭ আগস্টের টিকিট।

ট্রেনের আগামা টিকিট বিক্রি চলবে আগামী ২২ আগস্ট পর্যন্ত। এর মধ্যে ২০, ২১ ও ২২ আগস্ট যথাক্রমে ২৮, ২৯, ৩০ ও ৩১ আগস্টের টিকিট পাবেন ঘরমুখো যাত্রীরা। রাজধানীর কমলাপুর রেলস্টেশন ও চট্টগ্রাম রেলস্টেশনের নির্ধারিত স্থানে বিশেষ ব্যবস্থাপনায় প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে আগাম টিকিট দেওয়া হবে। আর ফিরতি টিকিট বিক্রি শুরু হবে ২৫ আগস্ট থেকে, চলবে ২৯ আগস্ট পর্যন্ত।

এছাড়া ২৮ আগস্ট থেকে ঈদের আগের দিন পর্যন্ত সব আন্তঃনগর ট্রেনের সাপ্তাহিক যাত্রাবিরতি বাতিল করা হয়েছে। একই সঙ্গে ২৯ আগস্ট থেকে সাত জোড়া বিশেষ ট্রেন নামাবে বাংলাদেশ রেলওয়ে।



পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech