বিষপানে মা-ছেলের মৃত্যু

  

পিএনএস ডেস্ক : পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জে উপজেলায় দুই শিশুসহ মায়ের বিষপানের পর মা ও এক শিশু মারা গেছে।

এছাড়া আরেক শিশুকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঠাকুরগাও আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বুধবার রাতে পারিবারিক কলহের জেরে উপজেলার চেংটি হাজরাডাংগা ইউনিয়নের শেওরাতলী এলাকায় ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, পারিবারিক কলহের জেরে বুধবার সকালে শেওরাতলী গ্রামের জয়দেব রায়ের সাথে তার স্ত্রী মমতা রানীর (৩৫) ঝগড়া হয়। রাতে বাড়ি ফিরে ভাত রান্না করা নিয়ে উভরয়ের মধ্যে আবারও ঝগড়া বাধে। পরে মমতা রানী তার দুই শিশু সেতু রানী ও রাতুল চন্দ্র রায়কে আমের রসের সাথে বিষ পান করান। এ সময় তিনি নিজেও বিষ পান করেন।

আশঙ্কাজনক অবস্থায় পরিবারের অন্য সদস্যরা তাদের উদ্ধার করে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নেওয়ার পথে মা মমতা রানী ও তার দেড় বছরের ছেলে রাতুল চন্দ্র রায় মারা যায়। মুমূর্ষু অবস্থায় ছয় বছরের শিশু কন্যা সেতু রানীকে ঠাকুরগাও আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

চেংটি হাজরাডাংগা ইউপি চেয়ারম্যান অনিল চন্দ্র সরকার বলেন, ‘শোনা গেছে ছোটখাট বিষয় নিয়ে তাদের মধ্যে ঝগড়া হয়। এই কলহের জের ধরে মমতা রানী তারই দুই সন্তানকে নিয়ে আমের সাথে বিষ পান করেন। এ ঘটনায় দেড় বছরের পুত্র সন্তানসহ তার মায়ের মৃত্যু হয়। মেয়েটির অবস্থাও আশঙ্কাজনক।’

দেবীগঞ্জ থানা পুলিশের ওসি আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘পারিবারিক কলহের জের ধরেই দুই শিশুকে বিষ পান করান তাদের মা মমতা। পরে তিনি নিজেও বিষ পান করেছেন বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। আমরা আবও খোঁজ খবর নিচ্ছি। এ ঘটনায় আপাতত অপমৃত্যুর মামলা করা হচ্ছে।

পিএনএস/জে এ /

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech